নির্বাচিত ফেনী

ফেনীতে অবৈধ ফুড সাপ্লিমেন্ট বিক্রির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

food_vs_supplement

ফেনীতে ওষুধের ফার্মেসিগুলোতে ভিটামিন ও ফুড সাপ্লিমেন্টের নামে রমরমা ব্যবসা চালাচ্ছে অসাধু ব্যবসায়ীরা। এতে করে নীরিহ লোকজন প্রতারিত হচ্ছেন। এদের বিরুদ্ধে সিভিল সার্জন কার্যালয়ের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেয়ার ঘোষনা দেয়া হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ফেনী আধুনিক সদর হাসপাতাল সহ বিভিন্ন হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলোতে এক শ্রেনীর চিকিৎসককে প্রভাবিত করে রোগীদের প্রেসক্রিপশনে লিখিয়ে দেওয়া হচ্ছে নকল, ভেজাল ও নিুমানের ভিটামিন, ফুড সাপ্লিমেন্ট। কিছু কিছু কোম্পানি নামে-বেনামে অবৈধ ওষুধ ও ফুড সাপ্লিমেন্ট উৎপাদন ও বাজারজাত করে কোটি কোটি টাকার বাণিজ্য করছে। তাদের বেপরোয়ায় অবৈধভাবে বিক্রি হচ্ছে ফুড সাপ্লিমেন্টের নামে স্টোরয়েড সমৃদ্ধ ভিটামিন, ক্যালসিয়াম, মিনারেল ও জিংসমৃদ্ধ ওষুধ। এসব ভিটামিন ও ফুড সাপ্লিমেন্ট তৈরি করতে আটা, ময়দার সঙ্গে রং ও চিনি মেশানো হয়। যা মানবদেহে দীর্ঘমেয়াদি বিপর্যয় ডেকে আনে। কোম্পানীর রিপ্রেজেন্টেটিভরা নামিদামি ডাক্তারদের প্রভাবিত করে রোগীদের প্রেসক্রিপশনে ক্ষতিকর এসব ঔষুধ লিখিয়ে দিচ্ছেন। রোগীরাও ডাক্তারের ওপর আস্থা রেখে নিয়মিত ব্যবহার করছেন এসব ভিটামিন ও ফুড সাপ্লিমেন্ট।

গতকাল বুধবার ফেনী জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ে এক ওরিয়েন্টেশন সভায় সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে সিভিল সার্জন ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির এসব ফুড সাপ্লিমেন্ট বিক্রয়কারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার ঘোষনা দেন। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সিভিল সার্জন বলেন, রোগীদের প্রভাবিত করার জন্য যেসব ডাক্তার ও হাসপাতাল কর্মকর্তারা জড়িত তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্র জানিয়েছে, ওষুধের ফার্মেসিগুলোতে ফুড সাপ্লিমেন্ট সামগ্রী বিক্রয়, প্রদর্শন ও মজুদ নিষিদ্ধ। অথচ এসব অবৈধ ফুড সাপ্লিমেন্ট কোম্পানির উৎপাদিত ফুড সাপ্লিমেন্ট হিসেবে অবাধে বাজারজাত করা হচ্ছে।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *